টাকার অভাবে ঢাবিতে ভর্তি অনিশ্চিত দিদারুলের


Published: 2019-11-01 19:47:22 BdST, Updated: 2019-11-21 04:06:23 BdST

ঢাবি লাইভ: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় মেধা তালিকায় স্থান পেয়েছেন দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী মো. দিদারুল ইসলাম। প্রতিবন্ধী কোটায় মেধা তালিকায় ১০৭৯তম স্থান অর্জন করেন দিদারুল। কিন্তু তিনি টাকার অভাবে ভর্তি হতে পারছেন না তিনি। দিদারুল শরীয়তপুর নড়িয়া উপজেলার বৈশাখীপাড়া গ্রামের ঠেলাগাড়ি চালক মো. সিরাজুল ইসলাম খানের ছেলে।

জানা গেছে, দিদারুল শরীয়তপুর সদরের আংগারিয়া সমন্বিত অন্ধ শিক্ষা কার্যক্রমের আওতায় সমাজসেবা অধিদফতর থেকে সরকারি খরচে আংগারিয়া উচ্চবিদ্যালয় থেকে এসএসসি এবং শরীয়তপুর সরকারি কলেজ থেকে এইচএসসি পাশ করেন।

জানা গেছে, মানবিক বিভাগ থেকে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে জিপিএ ৪.০৯ এবং এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়ে ৩.২৫ পান তিনি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার আগ্রহ থেকে ভর্তি পরীক্ষা দিয়ে উত্তীর্ণ হয়েছেন। ভর্তি হতে সব মিলে (যাওয়া, আসা, থাকা ও খাওয়াসহ) প্রায় ৩০ হাজার টাকা প্রয়োজন। কিন্তু এতো টাকা একযোগে জোগাড় করার ক্ষমতা তার পরিবারের নেই।

দিদারুলের বাবা সিরাজুল ইসলাম খান ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, ছেলেটা ঢাকায় চান্স পেয়েছে। সামনে ভর্তি হতে হবে। কিন্তু এখনও ভর্তির টাকা জোগাড় করতে পারিনি।ঠেলাগাড়ি চালিয়ে নিজে চলতে পারি না, ভর্তির টাকা জোগাড় করুম কি করে?

তিনি আরও বলেন, আমার দুই ছেলে, দুই মেয়ে। মেয়েদের বিয়ে দিয়েছি। ছোট ছেলেকে ঢাকায় কাজ শিখতে দিয়েছি। অভাবের কারণে তাদের পড়াশোনা করাতে পারিনি। দিদারুল ইসলাম আমার বড় ছেলে। জন্ম থেকেই ছেলেটা আমার দুই চোখে দেখে না।

দিদারুলের সঙ্গে যোগাযোগ করা যাবে ০১৯৪৫৯৩৫০৩০ নম্বরে।

ঢাকা, ০১ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।