ফ্রি’তে যেভাবে একাদশে ভর্তি ফি প্রদান করবেন


Published: 2020-08-11 11:22:16 BdST, Updated: 2020-11-25 07:34:40 BdST

লাইভ প্রতিবেদকঃ একাদশ শ্রেণির ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের অনলাইনে ভর্তি কার্যক্রম চলছে। গত রোববার (৯ আগস্ট) সকাল ৭টা থেকে অনলাইনে শুরু হয়েছে এ ভর্তি কার্যক্রম। দেশের সব সরকারি ও বেসরকারি কলেজগুলোতে ভর্তি হতে আগামী ২০ আগস্ট পর্যন্ত অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন শিক্ষার্থীরা।

এ বছর শিক্ষার্থীরা শুধু অনলাইনেই (http://www.xiclassadmission.gov.bd/) এ ঠিকানায় ভর্তির আবেদন করতে পারবেন।

এছাড়া বিকাশের মাধ্যমেও ১৫০ টাকা আবেদন ফি জমা দিয়ে অনলাইনে আবেদন করা যাবে। তবে বিকাশের মাধ্যমে টাকা পরিশোধ করতে কোনো চার্জ পরিশোধ করতে হবে না। বিকাশ ছাড়াও ফি জমা দেয়া যাবে নগদ, সোনালী ব্যাংক, টেলিটক, শিওর ক্যাশ ও রকেটের মাধ্যমে।

কেবল বিকাশ অ্যাপ দিয়ে পে বিল করলেই এ অফারটি উপভোগ করা যাবে। এছাড়াও শিক্ষার্থীরা কলেজের ভর্তি ফি বিকাশ করলেই ৩ টাকা ইনস্ট্যান্ট ক্যাশব্যাক পাবেন বলেও জানা গেছে। একটি বিকাশ একাউন্ট থেকে সর্বোচ্চ ৫০১ টাকা পর্যন্ত ক্যাশব্যাক উপভোগ করা যাবে।

তবে এ ক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের কিছু শর্ত ও নিয়ম মেনে আবেদন ও টাকা পরিশোধ করতে হবে। শর্তগুলো নিচে তুলে ধরা হলো।

১. যে সকল বিকাশ গ্রাহকের সক্রিয় একাউন্ট স্ট্যাটাস এবং পর্যাপ্ত ব্যালেন্স আছে শুধুমাত্র তারাই নিজের বিকাশ একাউন্ট থেকে পেমেন্ট বিকাশ করে এই অফারটি উপভোগ করতে পারবেন। ২. ক্যাশব্যাক পেতে হলে গ্রাহকের একাউন্ট স্ট্যাটাস ও ইনকামিং লেনদেন অবশ্যই সক্রিয় থাকতে হবে। গ্রাহকের একাউন্ট স্ট্যাটাসের ইস্যুজনিত কারণে ক্যাশব্যাক বিতরণ ব্যর্থ হলে গ্রাহক অফারের ক্যাশব্যাক পাবেন না।

৩. গ্রাহকের একাউন্ট স্ট্যাটাসের ইস্যুজনিত কারণ ছাড়া যদি অন্য কোনো অজানা/ অপ্রত্যাশিত কারণে ক্যাশব্যাক বিতরণ ব্যর্থ হয়, সেক্ষেত্রে ক্যাম্পেইন শেষ হওয়ার পরবর্তী ২ মাসের মধ্যে বিকাশ ৩ দফা ক্যাশব্যাক বিতরণের চেষ্টা করবে। যদি সকল উপায়ই ব্যর্থ হয়, তাহলে আর কোনো চেষ্টা করা হবে না এবং গ্রাহক ক্যাশব্যাক অফারের জন্য আর বিবেচিত হবেন না।

৩. গ্রাহক তার নিজের বিকাশ একাউন্ট থেকে সফলভাবে লেনদেন সম্পন্ন করার মাধ্যমে (ক্যাম্পেইন চলাকালীন নির্দিষ্ট মার্চেন্টের নাম্বারে পেমেন্ট বিকাশ করার মাধ্যমে) ক্যাশব্যাক পাবেন। ৪. বিকাশ কোনো রকম পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই যেকোনো উপায়ে ক্যাম্পেইনের নিয়ম ও শর্তাবলি এবং মার্চেন্ট/আউটলেটের অংশগ্রহণে পরিবর্তন/সংশোধন বা যেকোনো সময় সম্পূর্ণ ক্যাম্পেইন বাতিল করার অধিকার সংরক্ষণ করে।

৫. কোনো নির্দিষ্ট লেনদেন এবং/অথবা গ্রাহকের লেনদেন কার্যক্রম যদি এরূপ কোনো যুক্তিসংগত সংশয় তৈরি করে যে, গ্রাহক কর্তৃক ক্যাশব্যাক ক্যাম্পেইনের সুবিধার অপব্যবহার হয়েছে, সেক্ষেত্রে বিকাশ গ্রাহকের ক্যাশব্যাক বাতিলের অধিকার সংরক্ষণ করে।

৬. যদি মার্চেন্ট কোনো সার্ভিস ডেলিভারি নিশ্চিত করতে না পারে, সেক্ষেত্রে বিকাশ তার দায়ভার নেবে না, বিকাশ কেবল গ্রাহককে পেমেন্ট সেবা দেয়। মার্চেন্ট যদি গ্রাহককে কোনো সেবা সঠিকভাবে ডেলিভারি করতে না পারার কারণে মূল্য ফেরত দেয়, তাহলে বিকাশ ঐ নির্দিষ্ট লেনদেনের জন্য গ্রাহকের ক্যাশব্যাক লিমিট পুনর্বহাল করতে বাধ্য নয়। গ্রাহক ক্যাশব্যাক অফারটি গ্রহণ করেছেন বলে ধরে নেওয়া হবে। ৭. যদি কোনো গ্রাহক ভুল পেমেন্ট করে ফেলেন, সেক্ষেত্রে অফার শেষে গ্রাহক এর দাবির বৈধতা সাপেক্ষে বিকাশ বিষয়টি নিষ্পত্তি করবে।

ঢাকা, ১১ আগস্ট (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।