কুড়িয়ে চলছে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়...ববিঃ নেই ভিসি, প্রো-ভিসি, ট্রেজারার, রেজিস্ট্রার ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক!


Published: 2019-10-10 19:21:42 BdST, Updated: 2019-10-22 20:35:55 BdST
ববি লাইভঃ ভিসি, প্রো- ভিসি, ট্রেজারার ও রেজিস্ট্রারের মত গুরুত্বপূর্ণ ৪ টি পদই শূন্য। পুরোপুরি অভিভাবক শূন্য হয়ে পড়েছে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়। ট্রেজারার অধ্যাপক এ কে এম মাহবুব হাসান টানা চার মাস ধরে ভিসির রুটিন দায়িত্ব পালন করছিলেন।
 
শিক্ষার্থীদের ‘রাজাকারের বাচ্চা’ বলায় দীর্ঘ ৩৪ দিন ছাত্র আন্দোলনের মুখে গত ২৬ মে উপাচার্য ড. এস এম ইমামুল হক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিদায় নিলেও বিগত চার মাস অতিবাহিত হওয়ার পর নিয়োগ হয়নি নতুন ভিসি। সেই থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার ভিসির রুটিন দায়িত্ব পালন করেন।
 
গত ৭ অক্টোবর সোমবার তার ট্রেজারার পদের মেয়াদ শেষ হয়। এখন পর্যন্ত নিয়োগ হয়নি নতুন ট্রেজারার । প্রায় এক বছর ধরে শূন্য রয়েছে রেজিস্ট্রার পদ। ফলে ভিসির রুটিন দায়িত্ব পালন করার মতো পদাধিকারী কেউ নেই। 
 
বন্ধ রয়েছে একাডেমিক কাউন্সিল, অর্থ কমিটির মিটিং ও সিণ্ডিকেট সভা। আটকে আছে অনেক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত। এদিকে আগামী ১৮ ও ১৯ অক্টোবর অনুষ্ঠিতব্য ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা  অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে ।
 
তবে সদ্য সাবেক হওয়া ট্রেজারার ও রুটিন দায়িত্ব পালন করা উপাচার্য অধ্যাপক এ কে এম মাহবুব হাসান দেশ রূপান্তরকে জানান, প্রশাসনিক পদশূন্যতায় ভর্তি পরীক্ষায় কোন প্রভাব পড়বে না। আমি সবধরনের পদক্ষেপ নিয়ে রেখেছি।আশা করি যথা সময়েই সুষ্ঠু ও  সফলভাবে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।"
 
বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, এ কে এম মাহবুব হাসান ২০১৫ সালের ৮ অক্টোবর ট্রেজারার পদে যোগদান করেন। সে হিসাবে তার চার বছরের মেয়াদ পূর্ণ হবে আজ। শারদীয় দুর্গোৎসব উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় ছুটির আগে গত বৃহস্পতিবার শেষ কর্মদিবস পার করেন তিনি।
 
সংশ্নিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ট্রেজারার পদ শূন্য থাকলে বিধি অনুযায়ী ভিসির রুটিন দায়িত্ব পালন করবেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার। নারীঘটিত কারণে রেজিস্ট্রার মনিরুল ইসলাম এক বছর আগে প্রথমে সাময়িক ও পরে চূড়ান্তভাবে বরখাস্ত হন।
 
বিষয়টি নিয়ে তিনি মামলা করায় নতুন রেজিস্ট্রারও নিয়োগ হয়নি। ফলে ট্রেজারার ও রেজিস্ট্রার পদ শূন্য হওয়ায় ভিসির রুটিন দায়িত্ব পালন করার মতো পদাধিকারী কেউ নেই।
 
প্রশ্নপত্র প্রণয়নসহ পরীক্ষা গ্রহণের প্রধান ভিসি। পদটি শূন্য হওয়ায় কীভাবে ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণ করা হবে এ বিষয়ে কেউ কিছু বলতে পারছেন না।
 
এদিকে গত বৃহস্পতিবার শেষ কর্মদিবস পার করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক ফজলুল হক। ফলে গুরুত্বপূর্ণ এই পদটিও শূন্য রয়েছে। এছাড়াও প্রতিষ্ঠার ৯ বছরেও প্রতিষ্ঠানটিতে নিয়োগ হয়নি প্রো-ভিসি। ফলে ভিসির অনুপস্থিতিতে  প্রশাসনে নেই হাল ধরার মত কেউ।
 
২০১২-১৩ সেশনের গনিত বিভাগের শিক্ষার্থী রাহুল দেব গোলদার জানান, গত ডিসেম্বর মাসে মাস্টার্সের পরীক্ষা শেষ হয়। ১০ মাস পরেও মেলেনি রেজাল্ট।"
 
বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি ইংরেজী বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আরিফ হোসেন ক্যাম্পাসলাইভকে জানান, একাডেমিক কাউন্সিল ও সিন্ডিকেট সভা বন্ধ রয়েছে। নীতিনির্ধারনী সিদ্ধান্ত কেউ নিতে পারছে না। আগামী ১৮ তারিখের আগে ভিসি নিয়োগ না হলে আসন্ন ভর্তি হুমকির মুখে পড়বে।"
 
নতুন ভিসি কে হচ্ছেন। এ ব্যাপারে বিভিন্ন সূত্র থেকে জানা গেছে বেশ কয়েকজনের নাম।সদ্য সাবেক হওয়া ট্রেজারার এ কে এম মাহবুব হাসান সম্ভাব্য ভিসি লিস্টে থাকার গুঞ্জন উঠেছে।  সূত্রটি জানায়, সম্ভাব্য ভিসির তালিকায় আরও যাদের নাম আছে তারা হচ্ছেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এ কিউ এম মাহবুব, হিসাববিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মিজানুর রহমান ও আইন বিভাগের অধ্যাপক রহমত আলী।
 
ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ডুয়েট) গণিত বিভাগের অধ্যাপক মো. আবু নাঈম শেখ, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের অধ্যাপক মাহবুব আলম এবং ভূতত্ত্ব ও খনিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক সৈয়দ হুমায়ুন আক্তার।
 
এদের মধ্যে,  ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভুগোল ও পরিবেশ বিভাগের অধ্যাপক ড. একিউএম মাহবুবের বিরুদ্ধে ভর্তি জালিয়াতি ও অন্যজন একই বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাউন্টিং বিভাগে অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমানের বিরুদ্ধে আর্থিক অনিয়ম, যৌন হয়রানিসহ বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে এই শিক্ষকের বিরুদ্ধে।
বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্টরা জানান, সম্প্রতি ছাত্র আন্দোলনের মুখে ভিসিকে পদত্যগে বাধ্য করানো এমন একটি বিশ্ববিদ্যালয় অভিযুক্ত শিক্ষককে ভিসি হিসেবে নিয়োগ দিলে আবারে আন্দোলন হতে পারে বলে আশঙ্কা রয়েছে।
 
শিক্ষার্থীরা জানান, সাবেক ভিসি ইমামুল হক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিদায় নেয়ার পর রুটিন দায়িত্বপ্রাপ্ত ভিসি ও ট্রেজারার এ কে এম মাহবুব হাসান মাত্র ৪ মাসের মধ্যেই শিক্ষার্থী বান্ধব কাজের মাধ্যমে আস্থা অর্জন করেছে। কোন ধরনের অভিযোগ নেই এমন একজনকেই ভিসি হিসেবে নিয়োগ দেয়া হোক এমনটাই প্রত্যাশা ববির শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও কর্মকর্তাদের।
 
ঢাকা, ১০ অক্টোবর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি
 
 
 

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।