কলেজছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা


Published: 2019-09-07 19:29:54 BdST, Updated: 2019-12-13 00:31:32 BdST

লাইভ প্রতিবেদক: মনপুরা সরকারি ডিগ্রি কলেজ শাখার ছাত্রলীগের সভাপতি রাকিব হাসান রনির বিরুদ্ধে কলেজছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। একই কলেজের ছাত্রীকে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করে ছাত্রলীগের ওই নেতা।

ভোলার মনপুরা উপজেলার মনপুরা সরকারি ডিগ্রি কলেজের একছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে রাকিব। বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তুলে। পরে তাকে বিয়ের চাপ দেয়া হলে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানায় ছাত্রলীগের ওই নেতা। এ ঘটনায় ওই ছাত্রী মনপুরা থানায় রাকিবের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

ধর্ষণের শিকার ওই কলেজছাত্রীর অভিযোগ থেকে জানা গেছে, কলেজছাত্রী ও ছাত্রলীগ সভাপতির বাড়ি মনপুরা উপজেলার মনপুরা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের চরযতিন গ্রামে। তারা একই কলেজে পড়াশোনা করেন। এক বছর আগে ওই ছাত্রীকে প্রেমের প্রস্তাব দেন রাকিব হাসান রনি।

চলতি বছরের ১৪ এপ্রিল ওই ছাত্রীকে বিয়ে করার কথা বলে মনপুরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসতে বলেন রাকিব। সেখানে গেলে কলেজছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়। এরই মধ্যে গত সোমবার, ২ সেপ্টেম্বর দুপুরে কলেজছাত্রীকে বিয়ে করবে বলে রাকিবের বাড়িতে আসতে বলা হয়। বাড়িতে গেলে ছাত্রীকে ধর্ষণ করেন রাকিব।

সেই সঙ্গে বিয়ে করবে না বলে ছাত্রীকে বাসা থেকে বের করে দেয়া হয়। ওই সময় ছাত্রী বাড়ি যাবে না বললে তাকে মারধর করেন রাকিব। পরে স্থানীয়রা ছাত্রীকে উদ্ধার করে বাড়ি পৌঁছে দেয়। এ নিয়ে শুক্রবার রাতে থানায় মামলা করেন কলেজছাত্রী।

এবিষয়ে জানতে চাইলে মনপুরা থানার ওসি মো. ফোরকান আলী জানান, মনপুরা সরকারি ডিগ্রি কলেজের সভাপতি রাকিব হাসান রনির বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা করেছে কলেজছাত্রী। মামলার তদন্ত ও রনিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ঢাকা, ০৭ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।