যুবলীগের কর্তা হতে চান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক!


Published: 2019-11-16 21:36:25 BdST, Updated: 2019-12-09 18:37:50 BdST

ঢাবি লাইভ: বুক ভরা আশা নিয়ে বসে আছেন তিনি। চালাচ্ছেন নানান লবিং। করছেন তদবীর। দৌড় ঝাপ চালাচ্ছেন সাধ্যমত। তিনি আর কেউ নন। তিনি হলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) দর্শন বিভাগের প্রভাষক। নাম তার বেলাল আহমেদ ভূঞা অনিক। তার খায়েশ তিনি যুবলীগের রাজনীতি করতে চান। বসতে চান বড়সড় একটি পদে। নেতৃত্ব দিতে চান যুব সমাজের। শিক্ষক তাতে কি?

এবার তিনি যুবলীগের সপ্তম জাতীয় কংগ্রেস সম্মেলন প্রস্তুতির খাদ্য উপ-কমিটিতে সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন । খাদ্য উপ-কমিটির তালিকায় ২৬৭ নম্বর সদস্য হিসেবে তার নাম রয়েছে বলে তিনি নিজেই জানিয়েছেন।

প্রভাষক বেলাল আহমেদ বলেছেন, উপ-কমিটিতে খাদ্য বিভাগে আমার নাম রয়েছে। নেত্রী চাইলে যুবলীগের অন্য পদে আসবো। যুবলীগের কমিটিতে আসার ইচ্ছা আমারও আছে। আমার অনেক দিনের স্বপ্ন এটা।

তবে যুবলীগের পদে আসলে তিনি করবেন- এ বিষয়ে জানান, সুনাম ও খ্যাতি ফিরিয়ে আনতে সব ধরনের কাজ করব। যুবলীগকে সন্ত্রাস-চাঁদাবাজ মুক্ত করব। যুবলীগকে শুধু যুবদের উন্নয়নে কাজে লাগাব। আগামী দিনের স্বপ্ন পুরনে যুব সমাজকে কাজে লাগাবো।

যুবলীগের নেতা হওয়ার বিষয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি ( শিক্ষা) অধ্যাপক ড. নাসরীন আহমেদ বলেন, কোনো দলের পদ গ্রহণের ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোন বাধা নিষেধ নেই। তবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষক হিসেবে তার যুবলীগের যে কোনো পদের চেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকতার মর্যাদায় অনেক বেশি। আমি চাই উনি এ সিদ্ধান্ত থেকে ফিরে আসবেন। তবে এটা তো তার নিজস্ব ব্যাপার। আমি কেবল করনীয় বিষয়টি বললাম।

বেলাল আহমেদ ভূঞা অনিক বলেন, উপ-কমিটিতে আসা তেমন কোনো দোষের নয়। যদি এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো মান ক্ষুণ্ন হয় তাহলে আমি শিক্ষকতায় ফিরে আসব। আমার পেশা তো আছেই। এটা তো আর ছাড়ছি না।

বেলাল আহমেদ ভূঞা অনিক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগ থেকে পড়াশোনা করেছেন। মেধাক্রম পিছনে থাকায় প্রথমে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে নিয়োগ পাননি। পরে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে দর্শন বিভাগে প্রভাষক হিসেবে নিয়োগ পান।

২০১৭ সালে তৎকালীন ভিসি অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক তাকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগে প্রভাষক হিসেবে নিয়োগ দেন। এ শিক্ষকের গ্রামের বাড়ি নরসিংদী জেলায়। যদিও তার নিয়োগ ও কর্মকান্ডের ব্যাপারে বিভিন্ন প্রশ্ন তুলে তুলেছেন নীল দলের অনেকেই।

এ বিষয় নিয়ে তুমুল বিতর্ক ও আলোচনা চলছে ঢাবির ক্যাম্পাসে। সমালোচনা হচ্ছে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের মাঝে।

ঢাকা, ১৬ নভেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।