"বিজয়ের ৪৮ বছর পরেও কৃষকেরা মুক্তি পয়নি"


Published: 2019-12-16 15:39:42 BdST, Updated: 2020-01-23 19:59:36 BdST

ঢাবি লাইভ: ধানের ন্যায্য দাম, সরকার কর্তৃক নির্ধারিত দামের পূর্ণ বাস্তবায়ন, শ্রমিকের নায্য শ্রমমূল্য প্রতিষ্ঠার দাবিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) মানববন্ধন করেছে অর্গানাইজেশন ফর রুট ডেভেলপমেন্ট বাংলাদেশ (ওআরডিবি)। মানববন্ধনে স্বাধীনতার ৪৮ বছর পেরিয়ে গেলেও কৃষকরা এখনও মুক্তি লাভ করেনি বলে দাবি করেছেন বক্তারা।

আজ ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসে 'কৃষক যদি না বাঁচেগো দেশ বাঁচাবে কে? 'স্লোগানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাস বিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে এই মানববন্ধন করে সংগঠনটি।

মানববন্ধনে সংগঠনটির সভাপতি মো জুনাইদ হোসেন খান বলেন, বর্তমানে পানির চেয়ে ধানের দাম কম। কতিপয় সিন্ডিকেট এবং কতিপয় আমলাদের অসহযোগিতায় আজও কৃষকরা ন্যায্য দাম পাচ্ছে না। কৃষকদের অধিকার রক্ষায় সংগঠনটির সভাপতি ৬ টি দাবি পেশ করেন।

দাবিগুলো হলো
১. লটারি পদ্ধতির পরিবর্তে কৃষকদের জমি অনুপাতে ফসল ক্রয় করা।

২. ধানের রাষ্ট্রীয় সংগ্রহশালা সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ক্রয় করে পূর্ণ করবে।

৩. কাউন্টার টেরোরিজম, দ্রুত বিচার নিষ্পত্তি ট্রাইবুনালের আদলে ধান সংগ্রহে বিশেষায়িত টিম গঠন।

৪. কৃষকের উৎপাদন খরচ কমাতে ভর্তুকির যথাযথ প্রয়োগ ও প্রযুক্তির ব্যবহার কৃষকদের জন্য সহজলভ্য করা।

৫. পাট-শিল্পের পুনরুত্থানের লক্ষ্যে এন্টি পলিথিন আইন প্রয়োগ ও প্রচলন করা।

৬. দ্রব্যমূল্যের দামের সাথে সামঞ্জস্য রেখে পাটকল শ্রমিকদের বেতন কাটামো নির্ধারণ করা।

মানববন্ধনে সংগঠনটির সহ-সভাপতি সাফওয়ান চৌধুরী বলেন, একবিংশ শতাব্দীর ইকোনোমিক চ্যালেন্জ মোকাবিলা করার জন্যে আমাদের যে ইকোনোমিক ওয়ারিয়র রয়েছে তাদের কল্যান না হলে দেশের কল্যান কখনই হবে না। আমাদের জিডিপি গ্রথের স্যুপারম্যান দের যথাযথ মূল্যায়ন করা হোক।

সাধারণ সম্পাদক মিতালি মন্ডল বলেন, বিজয়ের আটচল্লিশ বছর পরেও কৃষকরা মুক্তি পায়নি। কৃষকদের স্বাধীনতার মধ্য দিয়ে আমরা বিজয়ের আনন্দ উপভোগ করতে চাই।

মিডিয়া ও টেলিকাস্ট বিষয়ক সম্পাদক আতিকুর রহমান বলেন, চাষারা রোদে পুড়ে, বৃষ্টিতে ভিজে আমাদের মুখে অন্ন তুলে দিচ্ছেন আর আমরা ভোগ করে যাচ্ছি কিন্তু তাদের খোঁজ আমরা রাখছি না। মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনটির প্রায় ১৫-২০ জন কর্মী।


ঢাকা, ১৬ ডিসেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।