আদালতে দণ্ডিত হয়েও বেতন তুলছেন মাদ্রাসা সুপার


Published: 2020-10-03 19:03:14 BdST, Updated: 2020-12-02 18:09:59 BdST

নেত্রকোনা লাইভ: নেত্রকোনার মদনে একটি মাদ্রাসার সুপার অর্থ আত্মসাৎ মামলার সাজাপ্রাপ্ত ও গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হওয়ার পরও তিনি স্বপদে বহাল রয়েছেন। একই সঙ্গে বেতন-ভাতা উত্তোলন করছেন বলে অভিযোগ ওঠেছে ওই সুপারের বিরুদ্ধে।

বিষয়টি নিয়ে মামলার বাদী ও এলাকার জনসাধারণের মাঝে ক্ষোভের সঞ্চার হচ্ছে। শনিবার বিকালে মামলার বাদী স্থানীয় সাংবাদিকদের বিষয়টি জানান।

অভিযুক্ত ওই সুপারের নাম মো. আজিজুল হক। তিনি মদন উপজেলার বাস্তা গ্রামের ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসায় কর্মরত। তার গ্রামের বাড়ি কেন্দুয়া উপজেলার বিদ্যাবল্লভ গ্রামে।

এ ব্যাপারে ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসার অ্যাডহক কমিটির সভাপতি আব্দুস ছালাম খান বলেন, আমরা এখন পর্যন্ত দালতের কোনো নির্দেশ পাইনি। এ কারণে সুপার গত আগস্ট মাস পর্যন্ত বেতন-ভাতা উত্তোলন করেছেন।

এ ব্যাপারে কেন্দুয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. হাবিবুল্লাহ খান বলেন, আদালত মাদ্রাসা সুপার মো. আজিজুল হককে ছয় মাসের কারাদণ্ড ও নগদ ৫ লাখ ৪০ হাজার টাকা দণ্ডিত করেছেন। আজিজুল হক পলাতক রয়েছেন। শুনেছি তিনি আগস্ট মাসের বেতন উত্তোলন করেছেন। তাকে গ্রেফতার করতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হচ্ছে। আশা করা যাচ্ছে দ্রুতই তাকে গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠানো হবে।


ঢাকা, ০৩ অক্টোবর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।