খালেদা জিয়ার মেডিকেল রিপোর্ট দাখিলের নির্দেশ


Published: 2020-02-23 20:51:47 BdST, Updated: 2020-04-07 09:49:34 BdST

লাইভ প্রতিবেদকঃ বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সর্বশেষ শারীরিক অবস্থার প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নির্দেশ প্রদান করেছেন হাইকোর্ট। আপিল বিভাগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী খালেদা জিয়া অ্যাডভান্স ট্রিটমেন্ট নিতে সম্মতি দিয়েছেন কি না, দিয়ে থাকলে বর্তমানে তার শারীরিক অবস্থা কী, সে প্রসঙ্গে রিপোর্ট দাখিল করতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসিকে বলা হয়েছে।

বুধবার বিকেল পাঁচটার মধ্যে এই রিপোর্ট দাখিল করতে হবে। বৃহস্পতিবার জামিন আবেদনের পরবর্তী শুনানি হবে। বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি এ কে এম জহিরুল হকের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রবিবার এই আদেশ দেয়। জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় দুপুরে খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনে আদালত এ আদেশ দেয়। এদিন সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে সিনিয়র আইনজীবী জয়নুল আবেদীন এবং রাষ্ট্রপক্ষে এটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম শুনানি করেন।

এর পূর্বে সকালে রাষ্ট্রপক্ষে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সরোয়ার হোসেন বাপ্পী সময় চাইলে আদালত দুপুর দুইটায় শুনানির জন্য সময় নির্ধারণ করেন।

এসময় শুনানির জন্য বিএনপির আইনজীবীরা উপস্থিত ছিলেন। অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম উপস্থিত না থাকায় রাষ্ট্রপক্ষ সময় আবেদন করলে আদালত তা মঞ্জুর করেন। এদিকে খালেদা জিয়ার জামিন শুনানিকে কেন্দ্র করে আদালতে জোরদার করা হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা। সুপ্রিম কোর্ট এলাকায় সকাল থেকেই ব্যাপক নিরাপত্তা লক্ষ্য করা গেছে।

সুপ্রিম কোর্টের মাজার গেটের প্রবেশপথে তল্লাশি এবং পরিচয়পত্র চেক করে জনসাধারণকে সুপ্রিমকোর্ট এলাকায় প্রবেশ কারার জন্য অনুমতি দেন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। এর পূর্বে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় খালেদার জামিন আবেদনটি দাখিল করেন আইনজীবী সগির হোসেন লিয়ন। খালেদা জিয়ার শারীরিক অসুস্থতার বিষয়টি উল্লেখ করে এই জামিন আবেদন করা হয়।

এ বিষয়ে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের আহ্বায়ক ও খালেদা জিয়ার অন্যতম জ্যেষ্ঠ আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন জানান, জামিন আবেদনে বেগম জিয়ার গুরুতর অসুস্থের বিষয়টি তুলে ধরা হয়েছে। চিকিৎসকরাই জানিয়েছেন, তার অ্যাডভান্স চিকিৎসার প্রয়োজন। তিনি পঙ্গুত্বের দিকে চলে যাচ্ছেন। পিজি হাসপাতালেতো তিনি বহু দিন ধরে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

অথচ তার কোনো উন্নতি লক্ষ করা যাচ্ছে না। বরং শারীরিক অসুস্থতা আরো বেড়ে গেছে। এমন কিছু ওষুধ ও ইনজেকশনের কথা বলা হচ্ছে, যেগুলো দেশে পুশ করা সম্ভব হচ্ছে না। তাই তার ইচ্ছানুযায়ী দেশী-বিদেশী হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য জামিন আবেদন করা হয়েছে।

ঢাকা, ২৩ ফেব্রুয়ারি (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।