করোনা ভেবে মাকে রাস্তায় ফেলে গেল পাষান্ড সন্তান


Published: 2020-06-06 22:34:43 BdST, Updated: 2020-07-06 04:27:36 BdST

লাইভ প্রতিবেদক: নির্মম। পাষান্ড। এমন সন্তানের কথাও শুনতে হচ্ছে আজকের এই উন্নত সমাজে। মার শ্বাসকষ্ট দেখা দেয়ায় তাকে রাস্তায় ফেলে গেছে এক সন্তান। ঝড়-বৃষ্টির মধ্যে তিনদিন পড়ে থাকার পর তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলের ক্যাম্প পুলিশ।

এ ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়ে চিকিৎসকরা বলছেন কারো শ্বাসকষ্ট হলেই কোভিড আক্রান্ত ভেবে নেয়া ঠিক নয়। করোনা মহামারীর মধ্যে যখন পরিবারের বয়স্ক সদস্যটির আরো বেশি খেয়াল রাখার তাগিদ দেয়া হচ্ছে বার বার, তখনই মাকে রাস্তায় ফেলে গেলেন সন্তান।

শ্বাসকষ্ট হওয়ায় করোনা আক্রান্ত সন্দেহে তাকে ফেলে যাওয়া হয়। ৬ জুন শনিবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নতুন ভবনের পাশের রাস্তা থেকে ৫০ বছর বয়সী মনোয়ারা বেগমকে উদ্ধার করেন মেডিকেল ক্যাম্প পুলিশ। ভর্তি করা হয়েছে করোনা ইউনিটে।

ঢামেক সহকারী ইনচার্জ আব্দুল খান বলেন, তার পরিবার করোনা অনুমান করে তাকে হাসপাতালে নিয়ে এসেছিল। কিন্তু পরে কেন তাকে ফেলে গেছে তা আমার জানা নেই। পরিবারের সঙ্গে মিরপুর কমার্স কলেজের পাশে একটি বস্তিতে থাকতেন মনোয়ারা।

তিন দিন আগে তাকে ফেলে রেখে যাওয়া হয়। ঝড় বৃষ্টির মধ্যে রাস্তাতেই ছিলেন তিনি। চিকিৎসকের বরাত দিয়ে ক্যাম্প ইনচার্জ আব্দুল খান জানান, তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। ঢাকা মেডিকেল পুলিশ ইনচার্জ বাচ্চু মিয়া বলেন, তার শারীরিক সমস্যা দেখে তাকে ফেলে দিয়ে গেছেন পরিবারের লোকজন।

তার করোনার পরীক্ষা চলছে। রিপোর্ট পেলে বাকিটা জানা যাবে। শুধুমাত্র শ্বাসকষ্ট হলেই কাউকে করোনা রোগী ভাবা অজ্ঞতার পরিচয় বললেন চিকিৎসক। অধ্যাপক ডা. সৈয়দ সহিদুল বলেন, শ্বাসকষ্ট হয়েছে বলেই কাউকে করোনা শনাক্ত করে রাস্তায় ফেলে দেয়া যাবে না।

যারাই এই ঘটনা শুনেছেন তারাই ঘৃণা ভরে প্রত্যাখ্যান করেছেন। বলেছেন এসব কুলাঙ্গারদের সমাজে বসবাসের কোন অধিকার নেই। এদের শাস্তির আওতায় আনা উচিৎ।

ঢাকা, ০৬ জুন (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এআইটি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।