আবাসিক হোটেলে ছাত্রীর লাশ ফেলে পালিয়েছে বয়ফ্রেন্ড!


Published: 2020-03-03 18:17:40 BdST, Updated: 2020-08-07 16:06:56 BdST

পটুয়াখালী লাইভঃ পর্যটনকেন্দ্র কুয়াকাটায় ছাত্রীকে নিয়ে ঘুরতে গিয়েছিলেন বয়ফ্রেন্ড। সেখানে একটি আবাসিক হোটেলে উঠেন স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে। রাতে তাকে শ্বাসরোধে হত্যার পর পালিয়ে গেছে ওই বয়ফ্রেন্ড।

কুয়াকাটার হলিডে ইন হোটেল থেকে মঙ্গলবার সকালে ওই ছাত্রীর লাশ উদ্ধার করেছে মহিপুর থানা পুলিশ। হোটেলে উঠার সময় ওই ছাত্রীর স্বামী পরিচয়দানকারীর নাম লেখা রয়েছে আবদুর রাজ্জাক।

মহিপুর থানার এস আই মনির হোসেন জানান, গত ২৯ ফেরুয়ারি বিকেলে স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে আবাসিক হোটেল হলিডে ইনের ১০৮ নং কক্ষে উঠে আঃ রাজ্জাক ও ঈশিতা বেগম নামে ওই ছাত্রী। হোটেল রেজিষ্টারে রাজ্জাক নিজের পরিচয় লিখে যশোর জেলার কেশবপুর থানার হানিফ আলী সরদারের ছেলে।

সোমবার সন্ধ্যায় হোটেল থেকে রাজ্জাক একা বের হলেও আর ফিরে আসেনি। এতে হোটেল ম্যানেজার ও বয়দের সন্দেহ হলে মঙ্গলবার সকালে তারা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ বিকল্প চাবি দিয়ে কক্ষের দরজা খুলে বিছানায় ওই ছাত্রীর লাশ পড়ে থাকতে দেখে। তার গলায় ফাঁস দেয়ার চিহ্ন রয়েছে।

ধারণা করা হচ্ছে সোমবার দুপুরের পর তাকে শ্বাসরোধে হত্যার পর কথিত স্বামী পরিচয়দানকারী রাজ্জাক পালিয়ে গেছে। ওই ছাত্রীর লাশ ময়না তদন্তের জন্য পটুয়াখালী মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

ঢাকা, ০৩ মার্চ (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমজেড

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।