সুইডেন বিশ্ববিদ্যালয়ে স্কলারশিপ নিয়ে উচ্চশিক্ষার সুযোগ


Published: 2019-07-14 21:17:10 BdST, Updated: 2019-12-15 05:33:11 BdST

লাইভ প্রতিবেদক: তথ্যপ্রযুক্তির এই যুগে স্কলারশিপ নিয়ে উচ্চশিক্ষার সুযোগ রয়েছে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের জন্য। উচ্চশিক্ষায় আর্ন্তজাতিকভাবে মেধাবীদের প্রতিযোগিতাও কম নয়। ঘরে বসেই পেতে পারেন স্কলারশিপের সকল খবর। আবার আবেদনও করতে পারেন অনায়াসেই।

উচ্চশিক্ষাযর জন্য ছেলে-মেয়েদের বিদেশে পাঠাতে মনোযোগী হয়ে উঠেছেন অভিভাবকেরা। তবে এ ক্ষেত্রে অজ্ঞতার অভাবে অনেকেই শিকার হচ্ছেন ভোগান্তিতে। অথচ সামান্য সচেতনতা আর আগ্রহ থাকলে নিজেই সম্পন্ন করা সম্ভব ভর্তিপ্রক্রিয়ার পুরো ধাপ।

বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের জন্য সুইডেন উচ্চশিক্ষা ও কর্মক্ষেত্রের একটি ভালো গন্তব্য।উচ্চশিক্ষার জন্য সুইডেন ২০১১ সাল থেকে বিদেশি (নন-ইইউ) শিক্ষার্থীদের জন্য টিউশন ফি আরোপ করেছে। এর পাশাপাশি তারা স্কলারশিপের পরিধিও বাড়িয়ে দিয়েছে সুইডেন সরকার। সুইডেনে বছরে দুইটি এডমিশন রাউন্ড চালু রয়েছে। জানুয়ারি রাউন্ডে (অটাম সেশন) আবেদনকাল প্রতিবছর ১৬ অক্টোবর থেকে ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত আবেদন করা যাবে। আর আগস্ট রাউন্ডে (স্প্রিং সেশন) আবেদনের সময় হচ্ছে ১ জুন থেকে ১৫ আগস্ট পর্যন্ত।

যেভাবে ভর্তির জন্য আবেদন করবেন: সুইডেনে ভর্তিপ্রক্রিয়া কেবল একটি অনলাইন এপ্লিকেশন সার্ভিসের (www.universityadmissions.se) মাধ্যমে সম্পন্ন করা যাবে। এটা অত্যন্ত সহজ ও ঝামেলাবিহীন। এই সাইটে একবার অ্যাকাউন্ট করলেই যেকোনো বিষয়ে, যেকোনো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আবেদন করা যাবে।

উল্লেখ্য, এই পোর্টাল ছাড়া সুইডেনে আবেদনের আর কোনো দ্বিতীয় পথ নেই। প্রথম ধাপে এখানে একটি অ্যাকাউন্ট করে ভর্তিপ্রক্রিয়া শুরু হলে আবেদন করতে হবে। পরবর্তী ধাপ হলো প্রয়োজনীয় কাগজপত্র পাঠানো। সঙ্গে আবেদনের কভার পৃষ্ঠা পাঠাতে হবে। ভুলেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ঠিকানায় কোনো কাগজপত্র পাঠানো যাবে না।

আবেদন ফি: অনলাইন আবেদনের পরবর্তী ধাপে ৯০০ ক্রোনার (প্রায় ১১ হাজার টাকা) অ্যাপ্লিকেশন ফি পরিশোধ করতে হয়। স্কলারশিপের আবেদন করার আগেই এই টাকা পরিশোধ করতে হবে। ক্রেডিট কার্ড বা ব্যাংকের মাধ্যমে পরিশোধের সুযোগ রয়েছে।

স্কলারশীপ: ভর্তি আবেদন সম্পন্ন করার পর স্কলারশিপ আবেদন করতে ভুলবেন না। বাংলাদেশিসহ ১২টি দেশের শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে সুইডিস ইনস্টিটিউট স্কলারশিপ প্রোগ্রাম। প্রতি বছর ২০০ জনশিক্ষার্থী এই বৃত্তির জন্য মনোনীত হন। সম্পূর্ণ টিউশন ফি মওকুফ করার পরও প্রায় ১ লাখ টাকার মতো মাসিক ভাতা দেওয়া হয় মনোনীত শিক্ষার্থীকে। আবেদনের জন্য ভিজিট করুন http://www.studyinsweden.se/Scholarships/SI-scholarships/


ঢাকা, ১৪ জুলাই (ক্যাম্পাসলাইভ২৪কম)//এমআই

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।