থানায় জিডি করেও মেলেনি বাবার খোঁজ, ইবি শিক্ষার্থীর আর্তনাদ


Published: 2020-05-23 12:23:24 BdST, Updated: 2020-06-06 23:44:04 BdST

চাঁপাই নবাবগঞ্জ লাইভ: প্রায় ৭ মাস আগে নিখোঁজ হন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের আল ফিকহ এন্ড লিগ্যাল স্টাডিজ বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী আব্দুল বশিরের পিতা। থানায় জিডি করে দীর্ঘদিনেও মেলেনি কোন খোঁজ বলে সামাজিক যোগযোগ মাধ্যম ফেসবুকে জানিয়েছেন তিনি। ফেসবুকে দেয়া স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো।

আগামী সোমবার ঈদ। প্রতিটি ঘরে ঘরে করোনার মাঝেও চলছে উৎসবের আমেজ। কেবল আনন্দ নেই আমার হৃদয়ে। আনন্দের লেশমাত্র নেই আমার পরিবারের কোন সদস্যের মুখে। আপনারা আপনাদের বাবাকে সাথে নিয়ে ঈদের নামাজ আদায় করতে যাবেন। দুপুরে একসাথে খাবার খাবেন। নিশ্চয়ই অনেক আনন্দময় সময় কাটাবেন প্রিয় বাবার সাথে!

সেসব দেখে আমার হৃদয় করুণ আর্তনাদ করবে। আপনাদের সাথে আমিও যাব ঈদের নামাজ পড়তে। কিন্তু আমার বুকচাপা গগনবিদারী আর্তনাদ কে দেখবে ! আমার মা’কে সান্ত্বনা কে দেবে? কিভাবে আমার ভাইবোনদের মুখে হাসি ফুটবে!

কারণ, আমার বাবা থেকেও যে নেই। জানিনা, তিনি কোথায় আছেন? কি অবস্থায় আছেন?
দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বন্ধুদের দ্বারা খোঁজ করেছি। বারবার নিরাশ হয়ে ফিরেছি। মাঝে মাঝে নিজেকে খুব অপরাধী মনে হয়।

বাবা আমাকে কত কষ্ট করে লালনপালন করেছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি করিয়েছেন। কিন্তু যিনি আমকে এতো বড় করলেন, অথচ তাঁকে খুঁজে বের করতে পাচ্ছি না। নিজেকে বড়ই অসহায় মনে হচ্ছে।

অযোগ্য লাগে যখন আয়নায় মুখ দেখি। ফিরে এসো বাবা। ফিরে এসো। কতদিন থেকে নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছে মা! তোমার অপেক্ষায় মা আজও পথ চেয়ে আছে। তুমি ফিরবে বলে ভাই-বোনেরা প্রতীক্ষার প্রহর গুনছে।

ফিরে এসো বাবা। এমন পরীক্ষা নিও না। এখনও যে আমি তোমাকে খুঁজে বের করার মতো তোমার যোগ্য সন্তান হয়ে গড়ে উঠতে পারিনি...

আমার বাবা ২০১৯ সালের নভেম্বর মাস থেকে নিঁখোজ হন। তারপর থেকে আর কোন খোঁজ মেলেনি আমার আব্বুর। পারিবারিক একটি কাজে তিনি নওগাঁ জেলার অন্তর্গত নিয়ামতপুর থানার কাঠনা বিরশইল নামক গ্রামে ছিলেন। এরপর হঠাৎ করে তিনি নিখোঁজ হন।

বাবাকে অনেক জায়গায় খোঁজ করেছি। কিন্তু কোন সন্ধান মেলেনি বাবার। নঁওগা জেলার প্রায় সব এলাকায় খোঁজ নিই আমি নিজে এবং সেখানে তিনদিন অবস্থান করি।

বাবাকে ফিরে পেতে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ থানায় জিডি করে আমার বড় ভাই আবু তাহের। জিডি নং ১৩৯। থানায় অনেকবার খোঁজ নিয়েছি। হতাশ হয়েছি।

আমার বাবা হালকা মানসিকভাবে অসুস্থ ছিলেন। এর আগে তিনি বাড়ি থেকে একা কোথাও চলে যেতেন। পরে একা বাড়ি ফিরতেন। আমরা ৫ ভাই ও ১ বোন ।

আমার বাবার শরীরের গঠন কালো মুখ, মুখে চাপ দাঁড়ি, লম্বা প্রায় ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি। হারানোর সময় পরনে ছিল চেক শার্ট এবং লুঙ্গি ছিল। আমার বাবার নাম: চান মুনসি ওরফে বুদ্ধু। তবে বুদ্ধু নামেই সকলে চেনে। আপনারা যদি কেউ কোথাও দেখে থাকেন তাহলে দয়া করে আমাদের জানাবেন।

যোগাযোগের ঠিকানা:

বাশির আহমেদ
গ্রাম:দিলালপুর (কাগমারী)
পোষ্ট অফিস:আজমতপুর, থানা:শিবগঞ্জ
জেলা:চাঁপাই নবাবগঞ্জ
মোবাইল নাম্বার: 01704306744, 01721556203

ঢাকা, ২৩ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এআইটি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।