মায়ের চিকিৎসা করাতে গিয়ে যেভাবে মার খেলেন দুই শিক্ষার্থী


Published: 2021-06-12 14:57:39 BdST, Updated: 2021-08-06 09:22:44 BdST

রংপুর লাইভ: এবার মায়ের চিকিৎসা করাতে গিয়ে বেধড়ক মার খেলেনে দুই শিক্ষার্থী। সম্পের্কে এরা দুজনই ভাই। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মাকে ভর্তি করানোর সময় অতিরিক্ত টাকা না দেওয়ায় মারধরের শিকার হয়েছেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী রেজওয়ানুল করিম রিয়াদ ও তার ভাই রাশেদ। এতে বিভিন্ন মহল ফুঁসে উঠেছে। তারা বলছে চুরি করেও বড় গলায় কথা বলছে। বিষয়টি গিয়ে গড়াল প্রশাসন পর্যন্ত।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগে গতকাল শুক্রবার রাতে রিয়াদ তার মাকে হাসপাতালে ভর্তির জন্য নিয়ে আসেন। ভর্তির জন্য ৩০ টাকার জায়গায় অতিরিক্ত টাকা দাবি করলে রিয়াদ তা দিতে অস্বীকার করেন। এতে এক পর্যায়ে কথা কাটাকাটি শুরু হয়।

এ সময় হাসপাতালের ১৫/১৬ জন লোক এসে রিয়াদকে মারধর করে। পাশে থাকা রিয়াদের ছোট ভাই তাকে উদ্ধার করতে গেলে তিনিও মারধরের শিকার হন। দুই ভাই রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। বিষয়টি স্বাভাবিক ভাবে মেনে নেননি উপস্থিত অনেকেই। এসময় বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থীও ছুটে আসেন। পরে স্থানীয়দের অনুরোধে ধামাটাপা দেয়া হয় বিষয়টি।

এ ব্যাপারে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর গোলাম রব্বানী বলেন, ঘটনাটি জানার পরপরই আমি হাসপাতালে যাই। ওই শিক্ষার্থীর মায়ের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়। সেই সঙ্গে ঘটনার শিকার শিক্ষার্থীদের খোঁজখবর নিই। তাদেরও হাসপাতালে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ঘটনাটি আমরা হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। তিনি এর সঙ্গে জড়িতদের বিচারের আওতায় আনবেন বলেন জানিয়েছেন।

এ ঘটনায় হাসপাতালের পরিচালকের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি এ বিষয়ে কোনও কথা বলতে রাজি হননি। তবে তার পক্ষে অনেকেই বলেছেন স্যার এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নিবেন। তবে উত্তেজন কিন্তু থামেনি।

ঢাকা, ১২ জুন (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//বিএসসি

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।